বিয়ানীবাজার পৌর নির্বাচনে নৌকার প্রচারণায় কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ

বাসিত আলমঃ বিয়ানীবাজার পৌরসভা নির্বাচনে শেষ দিনের প্রচারণায় আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মোঃ আব্দুস শুকুরের সমর্থনে পথসভা করেছেন কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ। রবিবার (২৩ এপ্রিল) বিকাল ৪টায় পৌর শহরে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। পথসভায় বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান ও কমলগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম।

কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন বলেন, নৌকা প্রতীক বাংলাদেশের জনগণের প্রতীক। নৌকায় ভোট দিলে রাস্তাঘাট উন্নয়ন হয়। কিন্তু এ পৌরসভার যে বেহাল অবস্থা দেখলাম তাতে করে আমার নিজেরও খারাপ লেগেছে। প্রশাসক দিয়ে জনপ্রতিনিথির কাজ হয়না। বিয়ানীবাজার পৌর এলাকার উন্নয়ন করতে দরকার আওয়ামী লীগের মনোনীত মেয়র। আগামী ২৫ তারিখ নৌকা মার্কায় ভোট দিলে এ পৌরসভা প্রথম শ্রেণির পৌরসভা হিসেবে উন্নিত হবে।

কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান বলেন, আপনারা বিয়ানীবাজার পৌরসভার ঐতিহাসিক ভোটার। আপনাদের পরবর্তী প্রজন্মের কাছে গর্ব করে বলতে পারবেন আমরাই প্রথম এ পৌরসভার প্রথম ভোট দিয়েছিলাম। পৌরসভা প্রতিষ্ঠার দীর্ঘ ১৭ বছর পরে আপনারাই প্রথম এ নির্বাচনে ভোট দিবেন। তিনি আরও বলেন, আব্দুস শুকুর একজন পরিচ্ছন্ন ব্যক্তি। যিনি নিজের পকেটের টাকা পয়সা খরচ করে পৌরসভা নির্বাচন আয়োজনের জন্য চেষ্টা করেছেন। তাকে নির্বাচিত করলে আপনাদের ভোট বিফলে যাবেনা। বিয়ানীবাজার পৌরবাসীর কাছে আমার অনুরোধ আপনাদের মূল্যবান ভোট নষ্ট না করে পৌরসভার উন্নয়ন করার সুযোগ দানে আপনারা নৌকা প্রতীকে ভোট দিবেন।

মেয়র প্রার্থী আব্দুস শুকুর বলেন, বিয়ানীবাজারের রাজনীতি, সমাজনীতি ও সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডের সাথে দীর্ঘদিন থেকে জড়িত রয়েছি। এসব কর্মকান্ড করতে গিয়ে মানুষ হিসেবে আমার ভুল-ত্রুটি থাকতে পারে। এজন্য আমি সবার কাছে ক্ষমা চেয়ে এক একটি ভোট নৌকা প্রতীকে দেওয়ার অনুরোধ করছি।

বিয়ানীবাজার উপজেলা আ’লীগের সভাপতি হাজি আব্দুল হাছিব মনিয়ার সভাপতিত্বে ও পৌর আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক এবাদ আহমদের পরিচালনায় পথসভায় বক্তব্য রাখেন সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট নাসির উদ্দিন খান, বিয়ানীবাজার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আতাউর রহমান খান, বড়লেখা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম সুন্দর, আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি রুহুল আলম মিন্টু, মহানগর আওয়ামী লীগ তথ্য ও গবেষনা সম্পাদক তপন মিত্র, মহানগর শ্রমিকলীগ নেতা এম. শাহরিয়ার কবির সেলিম, উপজেলা আ’লীগের সহ সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল আহাদ কলা মিয়া, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাজি মোশতাক আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন বাবুল, যুক্তরাজ্য প্রবাসী শামীম আহমদ, শিক্ষামন্ত্রীর এপিএস দেওয়ান মাকসুদুল ইসলাম আউয়াল, যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী ফারুকুল হক, যুবলীগের কেন্দ্রীয় নেতা এডভোকেট মোহাম্মদ আব্বাছ উদ্দিন, সিলেট জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এম. রায়হান আহমদ চৌধুরী জেলা ছাত্রলীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক মাহমুদুল করিম নেওয়াজ ও ছাতক অনলাইন প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক বাসিত আলমসহ স্থানীয় নেতৃবৃন্দ।

শেয়ার করুন